“দিদি নং-১” খ্যাত রচনা ব্যানার্জির জন্মদিন, ছেলের সাথে চুটিয়ে উপভোগ করলেন বার্থ ডে

গত গান্ধী জয়ন্তীর দিন ছিল দিদি নাম্বার ওয়ান খ্যাত অভিনেত্রী রচনা ব্যানার্জির জন্মদিন। এই বয়সেও যেভাবে তিনি নিজের রূপ এবং যৌবন ধরে রেখেছেন, তাতে যে কোন মানুষ তাকে দেখে হিংসা করতে বাধ্য। এই বছর জন্মদিনের সন্ধ্যায় শুধুমাত্র কাছের বন্ধুদের নিয়ে জন্মদিন সেলিব্রেট করেছেন অভিনেত্রী। নিজের ফ্ল্যাটে একটি বার্থডে পার্টি র আয়োজন করে ফেলেছিলেন তিনি। এবার তো পার্টির থিম ছিল চামেলি। সকলের মত চামিলি সাজে সেজে এসেছিলেন রচনা বন্দ্যোপাধ্যায়। জন্মদিনের দিন তাকে দেখে রীতিমতো চোখ সরানো যাচ্ছিল না।চামেলীর অভিনব সাজে তার পরনে ছিল মেরুন রঙের উজ্জ্বল শাড়ির সঙ্গে কনট্রাস্ট সবুজ রঙের ব্লাউজ। সবথেকে বেশি নজর কারা ছিল তার হেয়ার স্টাইল।

রচনা ব্যানার্জি মাথায় হলুদ এবং কমলা গাঁদা ফুল ব্যবহার করেছিলেন। তার এই অন্যরকম লোক আবারও প্রমাণ করে দিল যে তিনি আজও গ্রুপ এবং সাজের দিক থেকে অনেক অভিনেত্রীকে সহজেই টেক্কা দিতে পারেন। শুধুমাত্র রচনা ব্যানার্জি নয়,চামেলি সাজে সেজে পার্টিতে উপস্থিত ছিলেন রচনা কাছের বন্ধু অভিনেত্রী কনীনিকা, রিচা শর্মা, শ্রেয়া পান্ডে এবং আরো ঘনিষ্ঠ কয়েকজন ব্যক্তি। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, এই বছর ৪৬ এ পা দিলেন রচনা বন্দ্যোপাধ্যায়। রচনা ব্যানার্জি বাংলা ইন্ডাস্ট্রিতে অভিনেত্রী হিসেবে নিজের ক্যারিয়ার শুরু করেছিলেন।

তারপর কয়টি বাংলা সিনেমা হিট করার পর তিনি হিন্দি সিনেমা তে কাজ করা শুরু করেছিলেন। এ সময় তারা আলাপ হয় একজন ভোজপুরি অভিনেতার সঙ্গে। বাংলা এবং হিন্দি সিনেমা করার পর তিনি বেশ কয়েকটি ভোজপুরি সিনেমাতেও অভিনয় করেছিলেন। এরপর দীর্ঘ দিনের বয়ফ্রেন্ডের সঙ্গে তিনি বিয়ে করে ফেলেন। তার স্বামী নিজেও ছিলেন একজন অভিনেতা। সবকিছু ছেড়েছুড়ে রচনা ব্যানার্জী হয়ে উঠলেন একজন গৃহবধূ।

বিবাহের পর তার জন্ম হয় একটি পুত্র সন্তানের। তারপর থেকে আস্তে আস্তে তাদের দাম্পত্য জীবনের চির ধরতে শুরু করে। অচিরেই তাদের দাম্পত্য জীবন শেষ হয়ে যায়। একমাত্র ছেলেকে নিয়ে আলাদা হয়ে যান রচনা ব্যানার্জি। এরপর জি বাংলার দিদি নাম্বার ওয়ান থেকে তিনি আবার ঘুরে দাঁড়ান। এ প্লাটফরমটি তাকে আবার সাফল্যের চূড়ায় পৌঁছে দিয়েছিল।এছাড়া পরিচালক শিবপ্রসাদের কিছু সিনেমাতে গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে অভিনয় করে টলিউড ইন্ডাস্ট্রিতে কাম ব্যাক করেন তিনি। আপাতত একমাত্র ছেলেকে নিয়ে এবং নিজের কাজকে নিয়ে ব্যস্ত থাকেন রচনা ব্যানার্জি। শুধুমাত্র দিদি নাম্বার ওয়ান এর হোস্ট নয়, তিনি যে বাস্তব জীবনে একজন দিদি নাম্বার ওয়ান, তা প্রতি পদক্ষেপে তিনি প্রমাণ করে দিয়েছেন।