খাবারের সাথে বিষ মিশিয়ে খুনের চেষ্টা, মারাত্মক অভিযোগ করলেন ইসরোর বিজ্ঞানী

ভয়ঙ্কর আর্সেনিক বিষ দিয়ে খুন করার প্রচেষ্টা করা হয়েছিল ইসরোর অভিজ্ঞ বিজ্ঞানী তপন মিশ্রকে! এমনই ভয়ঙ্কর তথ্য প্রকাশ্যে আনলেন ইসরোর বিজ্ঞানী স্বয়ং। তিনি জানাচ্ছেন, আজ থেকে প্রায় তিন বছর আগে খাবারের সঙ্গে ভয়ঙ্কর আর্সেনিক বিষ মিশিয়ে তাকে হত্যার পরিকল্পনা করেছিল কেউ বা কারা। তিন বছর পর সোশ্যাল সাইটে সেই তথ্য তুলে ধরে কেন্দ্র সরকারকে এ বিষয়ে উপযুক্ত তদন্ত করার আর্জি জানিয়েছেন তিনি।

বিজ্ঞানী জানাচ্ছেন, ২০১৭ সালের ২৩ মে তিনি যখন ইসরোর হেডকোয়ার্টারে একটি সাক্ষাৎকার দিচ্ছিলেন সেই সময়ে দুষ্কৃতীরা তার খাবারের মধ্যে বিষ মিশিয়ে দেয়। তার দৃঢ় অনুমান, ওই দিন বিকেলে খাওয়ার সময় তাকে যে ধোসা এবং চাটনি পরিবেশন করা হয়েছিল সেই চাটনির মধ্যেই মারাত্মক আর্সেনিক বিষ মেশানো ছিল। যে কারণে দীর্ঘদিন অসুস্থ ছিলেন তিনি।

তপন মিশ্র জানাচ্ছেন, এই মারাত্মক বিষ তার শরীরে প্রবেশ করার পর থেকেই নানান শারীরিক সমস্যায় ভুগতে হয়েছে তাকে। ত্বকের এলার্জি, শ্বাসকষ্টসহ একাধিক উপসর্গ ছিল তার শরীরে। এ বিষয়ে প্রমাণস্বরূপ নিজের মেডিকেল রিপোর্টও সোশ্যাল সাইটে আপলোড করেন তিনি। তিনি জানিয়েছেন, অসুস্থতার দরুন দিল্লির এইমসে দীর্ঘদিন চিকিৎসাধীন ছিলেন তিনি।

তিনি আরও জানিয়েছেন, গত বছরের জুলাই মাসেই স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের এক আধিকারিক তাকে আর্সেনিক বিষ সম্পর্কে সতর্ক করেছিলেন। তপন মিশ্রর দাবি, ইসরোর অভিজ্ঞ বিজ্ঞানীকে হত্যা করার পেছনে দুষ্কৃতীদের কোনো গূঢ় অভিসন্ধি লুকিয়ে আছে। এ বিষয়টিকে কখনোই হালকাভাবে নেওয়া উচিত নয় বলেই মনে করছেন তিনি। যত শীঘ্র সম্ভব এর পেছনে জড়িতদের খুঁজে বের করার আর্জি জানাচ্ছেন তপন মিশ্র।