খুবই ক্লা’ন্ত আপনি? এই অ’ত্যা’ধু’নি’ক ট’য়’লে’টে বসলেই মেপে নেবে সব! বু’ঝুন কা’ন্ড

সারাদিন কাজ করতে করতে ক্লান্ত হয়ে পড়ি আমরা। কাজের ফাঁকে ক্লান্তি দূর করার জন্য নানান উপায় খুঁজতে থাকি। জাপানের কানাগাওয়া পার্ফেকচার এরিনা সার্ভিস সম্প্রতি এমন এক আধুনিক টয়লেট বানিয়েছে যে টয়লেট ব্যবহার করলে মানুষ যেমন একদিকে কাজের ফাঁকে ক্লান্তি দূর করতে পারবেন তেমনি তাদের ক্লান্তির পরিমাপ করে নিতে পারবে টয়লেটে অবস্থিত সেন্সর।

শুনতে অবাক লাগলেও এটাই সত্যি। জাপানের এই বিশেষ সংস্থাটি এমনই একটি অত্যাধুনিক এবং উন্নত প্রযুক্তির টয়লেট বানিয়েছে। টোকিও শহর থেকে পঁয়তাল্লিশ মিনিট দূরে অবস্থিত এই টয়লেট কিন্তু অত্যন্ত সহজসাধ্য এবং পরিবেশবান্ধবও বটে। এই টয়লেটের আশেপাশে রয়েছে ফুড জয়েন্ট।

কিভাবে কাজ করবে এই টয়লেট? সংস্থার কর্ণধার জানালেন বিডেট (Bidet)-এর সঙ্গে সংযুক্ত একটি টাচস্ক্রিন মারফত সাধারণ মানুষের ক্লান্তির পরিমাপ করে ফেলা সম্ভব। এই স্ক্রিনে প্রথমে ব্যবহারকারীকে নিজের ভাষা, এবং অন্যান্য তথ্য দিতে হবে। বিডেট (Bidet)-এর সঙ্গে সংযুক্ত সেন্সর মাত্র এক মিনিট সময়ের মধ্যেই সাধারণের ক্লান্তির পরিমাপ করে ফেলতে পারবেন।

মানুষের হৃদস্পন্দনের ওঠা ও নামার ভিত্তিতে তার ক্লান্তির পরিমাপ নির্ধারণ করবে বিডেটের সঙ্গে সংযুক্ত এই সেন্সর। ব্যবহারকারীকে এর জন্য নিজের বয়স এবং তিনি ক্লান্তি বোধ করছেন কিনা তা জানাতে হবে। তাহলেই স্বয়ংক্রিয় সেন্সর ক্লান্তির পরিমাপ করতে শুরু করে দেবে।