37 হাজার শরণার্থীকে নিয়ে বড়সড় পদক্ষেপ যোগী সরকারের

ইতিমধ্যেই দেশ জুড়ে নাগরিক কত সংশোধনী আইনের প্রতিবাদে ঝড় উঠেছে, দেশের সমস্ত রাজ্যে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের তরফে নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন চালুর ব্যাপারে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। গত বছর ডিসেম্বর মাসে আইন প্রণয়নের পর থেকে বাংলাদেশ পাকিস্তান ও আফগানিস্তানে নির্যাতিত সংখ্যালঘুদের নাগরিকত্ব দেওয়ার ব্যাপারে এক প্রকার কোমর বেঁধে মাঠে নেমে পড়েছে কেন্দ্র।

আর কেন্দ্রের পদক্ষেপকে স্বাগত জানিয়ে উত্তরপ্রদেশের যোগী সরকার ইতিমধ্যেই শরণার্থীদের তালিকা তৈরির কাজ শুরু করেছিল। তবে এ বার পিল ভিটের সাঁইত্রিশ হাজার শরণার্থীর নাম কেন্দ্রের তালিকায় পাঠাল যোগী সরকার।

সম্প্রতি পিলভিতের সমীক্ষা চালিয়ে জেলাশাসক বৈভব শ্রীবাস্তব জানিয়েছেন ধর্মীয় হিংসার শিকার হওয়া সাঁইত্রিশ হাজার শরণার্থীকে চিহ্নিত করে প্রাথমিকভাবে তালিকা তৈরি করেছে প্রশাসন আর তার পর সেই তালিকা উত্তরপ্রদেশ সরকার ও স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে।

সঙ্গত যোগী আদিত্যনাথ সরকার নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন রাজ্যে লাগু করতে অ মুসলিম শরণার্থী চিহ্নিত করার কাজ শুরু করেছিল কয়েকদিন আগেই, তাই তো উত্তর প্রদেশের আগ্রা রায়বরেলি শাহারানপুর গোরখপুর আলিগড় রামপুর মুজাফফরপুর হাপুর সহ বিস্তীর্ণ এলাকা থেকে অ মুসলিম শরণার্থী চিহ্নিত করার কাজ শুরু করেছিল।

সমস্তরকম এক্সক্লুসিভ খবর পেতে লাইক করুন