পৌষ সংক্রান্তি, কেমন থাকবে শীতের দাপট? দেখুন আবহাওয়া দপ্তর কি বলছে

আগের দিন আর নেই, পিঠে পুলির দিন থেকেই আগে বাংলায় জাকিয়ে পরত শীত। কিন্তু সেই শীত পালিয়ে গেছে, এবার আবহাওয়া দপ্তর আগের থেকেই জানিয়েছিল পৌষ সংক্রান্তির দিন কিছুটা হলেও শীতের প্রভাব থাকবে। কিন্তু এবার তারা আজকে জানিয়েছে, শীতের প্রভাব আজকের তুলনায় আরও কমতে চলেছে আগামীকাল কলকাতায়।

আর এর কারণ হল পশ্চিমী ঝঞ্ঝা। তবে এর মধ্যেও যেটা ভালো খবর সেটা হল, আগে যেমন পশ্চিমীঝঞ্ঝা মানেই বৃষ্টি এবার তেমন নাও হতে পারে। কিন্তু তাপমাত্রা আগের থেকে অনেকটাই বৃদ্ধি পাবে।আর তার ফলেই আর্দ্রতা জনিত অস্বস্তি বোঝা যাবে অনেকটাই। এদিকে আবহাওয়া দপ্তর জানিয়েছে আগের দিনের তুলনায় আর্দ্রতার পরিমাণ কিছুটা হলেও বৃদ্ধি পেয়েছে।

আর তার ফলেই তাপমাত্রার পারদ হু হু করে বেড়েছে। গতকাল ছিল তাপমাত্রা ১১ ডিগ্রী সেলসিয়াস, আর সেই তাপমাত্রা বেড়ে দাড়িয়েছে ১২ ডিগ্রীতে। তুলনামূলক ভাবে তাপমাত্রা কম হলেও আর্দ্রতা বৃদ্ধির জন্য অস্বস্তি হচ্ছে দক্ষিণ বঙ্গ বাসীদের। তারা জানিয়েছে কলকাতা সহ তার আশে পাশের জেলাগুলোতে একই তাপমাত্রা অনুভব হবে। আজ আবহাওয়ায় আর্দ্রতার পরিমাণ সর্বনিন্ম ৪৩ % আর সর্বোচ্চ ৯৭%।

আগামীকাল থেকে পারদ আরও চরতে শুরু করবে, সেখানে তাপমাত্রা ১৩- ১৪ তে ঘোরাফেরা করবে, কিন্তু তারপরের দিন মানে বৃহস্পতিবার থেকে তাপমাত্রা একেবারে লোপাট হয়ে যাবে দক্ষিণ বঙ্গ থেকে, আশঙ্কা করা হচ্ছে বৃহস্পতিবারের তাপমাত্রা থাকবে কলকাতার বুকে সর্বনিন্ম ১৭ ডিগ্রী সেলসিয়াস। আর সর্বোচ্চ কথা বললে বলতে হয় ৩০ ডিগ্রী।

এদিকে আবার মৌসম ভবন থেকে জানা গেছে, উত্তর ভারতে আরও একটি ঝঞ্ঝার কথা জানা গেছে, সেই ঝঞ্ঝার ফলে বিশাল তুষারপাতের সম্ভবনা আছে উত্তর ভারত জুড়ে। তবে খারাপ খবর হল কলকাতার বুকে শীতে দাপট কমে যাচ্ছে, আর তার ফলেই শীত পিপাসু মানেষের জন্য এটা সত্যি একটা দুঃখের সংবাদ।

সমস্তরকম এক্সক্লুসিভ খবর পেতে লাইক করুন