অবশেষে চার অভিযুক্তর ফাঁসি, আট বছর আগে সেই ডিসেম্বরের রাতে ঠিক কী হয়েছিল

ছবিঃ সংগৃহীত

2012 সালের 16 ডিসেম্বর রাজধানী শহর দিল্লির রাজপথে চলন্ত বাসে গণধর্ষণের শিকার হয়েছিলেন এক প্যারা মেডিকেল ছাত্রী। শুধু ধর্ষণ করাই নয় রীতিমতো নৃশংসভাবে খুন করা হয়েছিল তাঁকে তার পর টানা সাত দিন ধরে হাসপাতালে যমে মানুষে লড়াইয়ের পর দিল্লির এক নামী হাসপাতালে তাঁর মৃত্যু হয় আর তার পর থেকেই দেশ জুড়ে শুধুই প্রতিবাদ এবং শাস্তির দাবি।

শাস্তির দাবিতে পথে নেমেছিল গোটা দেশ, যদিও দেশের শীর্ষ আদালতের তরফে ফাঁসির সাজা শোনানো হয়েছে কিন্তু ফাঁসির দিন স্থির হয়নি তবে এবার 22 জানুয়ারি তারিখে অবশেষে ফাঁসির দিন ধার্য হল নির্ভয়া গণধর্ষণ কাণ্ডের অভিযুক্তদেড়। রাত নটার সময়ে প্যারা মেডিকেল ছাত্রী তাঁর বন্ধুর সঙ্গে সিনেমা দেখে বাড়ি ফিরছিল। দ্বারকায় ফেরার জন্য মুড়ি রক্ষায় অপেক্ষা করছিলেন তাঁরা, দীর্ঘক্ষণ দাঁড়িয়ে কোনও কিছু না পাওয়ায় একটি বাসে উঠে পড়ে।

বাসের ছয়জন ছাড়া আর কেউই ছিলেন না এর পর বাসের ভাড়াও দিয়েছিলেন। তার পরেই ভুল পথে বাস চালানো হয় এর পর প্যারামেডিকেল ছাত্রীর সঙ্গে থাকা বন্ধুকে মারধর করা হয় পরে ওই যুবতীকে স্বজন মিলে ধর্ষণ করে, তারপর এক জায়গায় যুবতী ও তাঁর বন্ধুকে বাস থেকে ঠেলে ফেলে পালিয়ে যায় বাসটি যদিও পরে অভিযুক্তরা ধরা পড়ে কিন্তু বাঁচানো যায়নি সেই নির্ভয়াকে।

সমস্তরকম এক্সক্লুসিভ খবর পেতে লাইক করুন