মুখ্যমন্ত্রীর কাণ্ডে অবাক রাজ্যপাল, তবে কি বরফ গলছে!

ছবিঃ সংগৃহীত

রাজ্যপালের আসনে বসার পরেই বাংলার মুখ্যমন্ত্রীর সাথে জগদীপ ধনকড়ের সংঘাত লেগেই আছে। আর সেই সংঘাত আরও চরম থেকে চরমতর হয়ে উঠেছে। কিন্তু তার মধ্যে যেনো ফের আশার আলো দেখতে পাচ্ছে রাজ্যপাল।

কারণ যে মুখ্যমন্ত্রী রাজ্যপালের একটি চিঠির উত্তরও দিত না, সেই মুখ্যমন্ত্রী সাথে সাথেই রাজ্যপালের চিঠির জবাব দিয়ে দিয়েছে। এতে একেবারে স্তম্ভিত রাজ্যপাল। তার পরেই তিনি ত্যার টুইটার হ্যান্ডেল থেকে টুইট করে লেখেন, আমাদের এই গণতন্ত্রে একসাথে এগিয়ে চলতে হবে।

রাজ্যপালের ওপরে যে সব কার্যকলাপ হয়ে চলেছে, তা একেবারেই স্বাভাবিক না। কারণ সমাবর্তন অনুষ্ঠানে তার গাড়ির ওপরে হামলা, যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ুয়াদের বিক্ষোভের সামনে পরা, এমনকি গত কয়েকদিন আগে এক সমাবর্তন অনুষ্ঠানের আগে তাকে অনেক্ষণ গাড়িতে বসে থাকতে হয়।

তার অনেক্ষণ পরে তিনি যোগ দেয় সেই অনুষ্ঠানে। দেখা যাচ্ছে তিনি যতদিন থেকে এসেছে তার এই ছাত্র বিক্ষোভ ও হামলার মুখোমুখি হতে হচ্ছে। এদিকে আবার তার সাথে মুখ্যমন্ত্রীর ঠান্ডা যুদ্ধ তো লেগেই রয়েছে। ছত্ররা এমন হয়েছে তাকে কালো পতাকা পর্যন্ত দেখিয়েছে, স্লোগান দিয়েছে গো ব্যাক রাজ্যপাল।

রাজ্যপালকে বিভিন্ন ব্যাঙ্গাত্মক নামেও ডাকা হয়েছে। পদ্মপাল বলেও তাকে ব্যাঙ্গও করা হয়েছেওপরে অবশ্য তিনি তার মনের সব ক্ষোভ টুইট করে সবাইকে জানিয়েছেন, তিনি লিখেছেন, আমি ভিসিকে নির্দেশ দিয়েছিলাম, যেনো আমার নির্দেশ মতো সমাবর্তনের অনুষ্ঠান এর ব্যবস্থা করা হয়। কিন্তু সেখানে গিয়ে দেখি সেই আগের মতোই সব। এটা সত্যি হতাশা জনক।

এইসবের পর রাজ্যপাল যখন মুখ্যমন্ত্রীকে চিঠি লেখেন বর্তমান শিক্ষা পরিস্থিতি নিয়ে কথা বলতে চায়, তখন তার জবাব ২৪ ঘন্টার মধ্যেই আসে, আর সেখানে মুখ্যমন্ত্রী বলে আমি নির্দিষ্ট দপ্তরে পাঠিয়ে দেবো, আর আপনার সাথে শিক্ষা মন্ত্রী সুবিধা মতো কথা বলে নেবেন।

সমস্তরকম এক্সক্লুসিভ খবর পেতে লাইক করুন