দিদিকে বলো কর্মসূচি নিয়ে বড়সড় ঘোষণা

লোকসভা নির্বাচনে হঠাত্ই ভরাডুবি হয়েছে রাজ্যের শাসক শিবিরের তাই তো ঘুরে দাঁড়াতে ভোট গুরু প্রশান্ত কিশোরের পরামর্শ অনুযায়ী রাজ্য সরকারের তরফে দিদিকে বল কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছিল। প্রথম থেকেই ব্যাপক সাফল্য পেয়েছে, সকলের সমস্যা সমাধানে যেভাবে এই কর্মসূচি প্রথম থেকেই কাজ শুরু করেছিল তাতে লাভের মুখ দেখেছিল তৃণমূল কিন্তু তাতেও নাকি এখনও অবধি লক্ষ্যমাত্রায় পৌঁছতে পারেনি তাই তো আবারও প্রশান্ত কিশোরের পরামর্শ মেনেই ডিসেম্বর থেকে সময়সীমা বাড়িয়ে 12 জানুয়ারি অবধি করা হয়েছে।

বাংলার মানুষের অভাব অভিযোগ শোনা এবং মানুষের কাছে পৌঁছনোর জন্য রণনীতির প্রশান্ত কিশোর রাজ্য সরকারকে দিদিকে বল কর্মসূচি শুরু করার পরামর্শ দিয়েছিলেন। প্রতিটি জেলা থেকে ব্লক স্তর এবং পঞ্চায়েত স্তরের নেতৃত্বদের এই জনসংযোগ বাড়ানোর কাজে লাগানো হয়েছিল পাশাপাশি প্রশান্ত কিশোরের দল সমস্ত বিধায়কদের গতিবিধির উপরে নজর রেখেছে।

কিন্তু তাতেও বাকি রয়ে গিয়েছে 20 শতাংশ কাজ আর তাই এ বার বৃহস্পতিবার পূর্ব মেদিনীপুর পশ্চিম মেদিনীপুর ও ঝাড়গ্রামের সঙ্গে বৈঠকে প্রশান্ত কিশোর সময়সীমা বাড়িয়ে 12 জানুয়ারি অবধি করেছে। আসলে বেশ কয়েকজন নেতা নেত্রীর বিরুদ্ধে দিদিকে বলো কর্মসূচির নির্দেশ না মেনে ফাঁকি দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে আর তাই তাদের আলাদা আলাদা করে ডেকে সতর্ক করার কাজ শুরু হয়েছে।

সমস্তরকম এক্সক্লুসিভ খবর পেতে লাইক করুন