সবজির দাম কমাতে কড়া নির্দেশ মুখ্যমন্ত্রীর, দেখুন কি বললেন তিনি

প্রতীক ছবি

এবার রাজ্যে বেড়ে গেছে কাঁচা সবজির দাম। তাই এবার রাজ্যে সবজির দাম কমানোর জন্য মুমক্যমন্ত্রীর কড়া নির্দেশ। তিনি যখন সরকারে এসেছিল তখন একটি কমিটি গঠন করেছিল মুল্যবৃদ্ধি দেখা শোনা করার জন্য। এবার তাদের কাজে লাগিয়েছে তিনি।

তিনি তাদের নির্দেশ দিয়েছে ৭ দিনের মধ্যে সবজির দাম কমানোর জন্য যা যা ব্যবস্থা নেওয়া দরকার তাই নিতে হবে। তিনি বলেছেন, আমাদের সাথে কেন্দ্রের কথা হয়েছিল ২৫ টাকা দরে রাজ্যে পেয়াজ পাঠাবে তারা কিন্তু তারা তাদের কথা রাখে নি।

তাই এখন কোনও উপায় নেই। কিন্তু সবাই বুলবুলের ঘাড়ে দোষ চাপিয়ে দিচ্ছে , এর ফলে অনেক জায়গায় ফসল নষ্ট হয়েছে ঠিকই কিন্তু সব জায়গায়তো আর এই বুলবুলের প্রভাব পরে নি। অন্য সব রাজ্যের কাচামাল কোথায় গেলো? আসলে বুলবুলের আগে সংবাদ মাধ্যম দেখিয়েছে এই বুলবুলের ফলে সবজির দাম কমে যাবে, আর এর সুযোগ নিয়েই অনেক ব্যবসায়ীরা আলু, পেয়াজ মজুত করে রেখেছে।

কিন্তু আজ থেকেই মানে শুক্রবার থেকেই ৫৯ টাকায় পাওয়া যাবে পেয়াজ রাজ্যের বিভিন্ন জায়াগায়। আর তিনি সাথে এটাও বলেছেন হিমঘরে যে আলু মজুত আছে তাতে রাজ্যের মানুষের খুব সহজেই চলে যাবে ২ মাস, এর তারপরেই আসবে নতুন আলু।

সুফল বাংলার স্টল থেকে ৫৯ টাকায় পাওয়া যাবে পেয়াজ, দরকার পরলে আরও অনেকগুলো সুফল বাংলার স্টল খোলা হবে। এবার যাতে ব্যবসায়ীরা এই সময় কাচামাল মজুত করে বেশী দামে বিক্রী করতে না পারে তার জন্য পুলিশ সহ এনফোর্স্মেন্ট ব্রাঞ্চের গোয়ান্দাকে ব্যবস্থা নিতে বলেছে।

তিনি আরও বলেছেন, যেসব জায়গায় ফসল নষ্ট হয়েছে ,সে সব জায়গায় ফসল নিয়ে আসার জন্য। কারণ অনেক জায়গায়তেই ভালো ফলন হয়েছে। এর জন্য পরিবহণ দপ্তরকে ব্যবস্থা নিতে বলেছে। কৃষকেরা যত দামে তাদের কাচামাল বিক্রি করেছে তার থেকে ৪-৫ গুণ দামে ব্যবসায়ীরা বাজারে বিক্রি করছে।

কলকাতা সহ সব শহরেই কাচামাল নিয়ে আসার নির্দেশ দিয়েছে। আর তিনি এটাও বলেছে এখন এই পরিস্থিতিতে লক্ষ্য করতে হবে যাতে তৃতীয় ব্যাক্তী ক্রেতা ও বিক্রেতার মধ্যে প্রবেশ করতে না পারে। আর এইসব লক্ষ্য করতে পারলেই সবজির দাম ৭ দিনের মধ্যেই কমে যাওয়ার আশা করেছেন মুখ্যমন্ত্রী।