প্রতিমা নিরঞ্জনকে কেন্দ্র করে জেলার বিভিন্ন নদীগুলি তে প্রশাসনের তরফ থেকে কঠোর নিরাপত্তার ব্যাবস্থা

241

আলিপুরদুয়ার:- চোখের জলে মাকে বিদায় ৷ আবার এসো মা ৷ কান্নাভেজা গলায় প্রতিমা নিরঞ্জন চলছে। আলিপুরদুয়ার জেলার শহর ও বিভিন্ন ব্লক গুলিতে ক্লাব ও বনেদী বাড়ি নিজেদের প্রতিমা নিরঞ্জন করে দিয়েছে । শুধু ক্লাব নয় বাড়ির পুজো যাদের রয়েছে সেগুলোও এদিন নিরঞ্জন করা হচ্ছে মঙ্গলবার। শহরের কালজানি ঘাটে পুলিশি নিরাপত্তার মাধ্যমে চলছে প্রতিমা নিরঞ্জন। প্রতীমা নিরঞ্জন কে কেন্দ্র জেলার বিভিন্ন নদীগুলি তে প্রশাসনের তরফ থেকে কঠোর নিরাপত্তার ব্যাবস্থা করা হয়েছিল ।

এদিকে বিজয়া দশমীর মেলা অনুষ্ঠিত হল কুমারগ্রাম ব্লকের কামাখ্যাগুড়িতে। কামাখ্যাগুড়ি ২ নম্বর গ্রাম পঞ্চায়েতের উদ্যোগে স্থানীয় হাই স্কুল ময়দানে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় ওই মেলা অনুষ্ঠিত হয়। জানা গিয়েছে, উত্তরের প্রাচীন ও ঐতিহ্যবাহী বিজয়া দশমীর মেলা গুলির মধ্যে অন্যতম এই মেলা। কবে এই মেলার প্রচলন হয়েছিল সে বিষয়ে কোনো সঠিক ধারণা মেলেনি। তবে এলাকার প্রবীণদের মুখে শোনা গেল, ১৯৬৩ সাল নাগাদ কামাখ্যাগুড়ি হাই স্কুল ময়দানে এই মেলা শুরু হয়। তার আগে কামাখ্যাগুড়ি সংলগ্ন তেঁতুলতলা এলাকায় ওই মেলা বসত। তখন স্থানীয় একটি ক্লাবের উদ্যোগে ওই মেলা পরিচালিত হত।৯০-এর দশকেই মেলা পরিচালনার দায়িত্ব নেয় স্থানীয় গ্রাম পঞ্চায়েত কর্তৃপক্ষ। দূরদূরান্তের বহু মানুষ মেলার আনন্দ উপভোগ করতে ছুটে আসেন। মঙ্গলবার সন্ধ্যা থেকেই মেলা প্রাঙ্গণ জমজমাট হয়ে উঠে। রকমারি দোকানপাট, প্রতিমা প্রদর্শনী ছিল মেলার মূল আকর্ষণ।