দীর্ঘ ৫ মাস পর খুললো তারকেশ্বর মন্দিরের মূল ফটক, তবে গর্ভগৃহে প্রবেশ নিষিদ্ধ ভক্তদের

মহামারীর জন্য প্রায় পাঁচ মাস একটা বন্ধ থাকার পর অবশেষে খুলে দেওয়া হলো তারকেশ্বর মন্দিরের দরজা।বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় তারকেশ্বর মঠে বৈঠকে বসেছিলেন পুরোহিত মন্ডলী, পৌরসভার প্রশাসনিক বোর্ডের চেয়ারম্যান,বিডিও প্রদর্শক মন্ডল এবং স্থানীয় ব্যবসায়ীরা।সেই বৈঠকে সকলের সঙ্গে আলোচনা করার পর সকলের সমর্থন এর ভিত্তিতে পুণ্যার্থীদের জন্য অবশেষে খুলে দেওয়া হলো মন্দির প্রাঙ্গণ। মহামারীর জন্য দীর্ঘ পাঁচ মাস পর অবশেষে সমস্ত সর্তকতা মেনে খুলে দেওয়া হয়েছে মন্দিরের দরজা।কিন্তু এখনও পর্যন্ত ভক্তদের জন্য বাবার গর্ভগৃহে প্রবেশ একেবারেই নিষিদ্ধ।

শ্রাবণ মাসে যেমন চোঙের মাধ্যমে ভক্তরা বাবার মাথায় জল ঢালে, তেমনই এখন কিছু মাস সেই প্রক্রিয়ায় ভক্তরা বাবার মাথায় জল ঢালছে।তারকেশ্বর মঠের তরফ থেকে জানানো হয়েছে যে, ভোর ৬ টা থেকে দুপুর ১২ টা পর্যন্ত মন্দিরের তিনটি পর্যায় ক্রমে খোলা থাকবে। প্রত্যেক প্রার্থীকে সমস্ত সরকারি স্বাস্থ্যবিধি মেনে তারপর প্রবেশ করতে হবে মন্দিরে। আপাতত দুর্গাপূজা পর্যন্ত মন্দিরের গর্ভগৃহে প্রবেশ নিষিদ্ধ থাকবে সাধারণ মানুষের জন্য।

পরবর্তীকালে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়ে গেলে আস্তে আস্তে স্বাভাবিক নিয়ম চালু হয়ে যাবে। প্রায় পাঁচ মাস পর এবার মন্দির খোলার খবরে খুশির হাওয়া তারকেশ্বর বাসের মধ্যে।এছাড়াও পুণ্যার্থীরা বাবাকে দর্শন করতে আসায় তারকেশ্বর মন্দিরের আশেপাশের ব্যবসায়ীদের কিছুটা আর্থিক লাভ হবে বলে মনে করা হচ্ছে।